ঢাকা, ২৪ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার, ২০২০ || ৯ আশ্বিন ১৪২৭
 নিউজ আপডেট:

রিয়ালকে হারিয়ে আটে পৌছে গেল ম্যানসিটি

ক্যাটাগরি : খেলা প্রকাশিত: ১১২৬ঘণ্টা পূর্বে   ৩৭


রিয়ালকে হারিয়ে  আটে পৌছে গেল ম্যানসিটি

ক্রীড়া প্রতিবেদক: চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোর ফিরতি লেগে গতকাল রাতে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে রিয়ালের বিপক্ষে ২-১ গোলে জিতেছে পেপ গুয়ার্দিওলার দল। রিয়ালের মাঠে প্রথম লেগে একই ব্যবধানে জিতেছিল দলটি। কোয়ার্টার-ফাইনালে তাদের প্রতিপক্ষ অলিম্পিক লিওঁ।

নিজেদের মাঠে প্রথম লেগে হারায় জয়ের বিকল্প ছিল না রিয়ালের। কিন্তু সিটির আক্রমণের মুখে বেশিরভাগ সময় নিজেদের রক্ষণ সামলাতেই বেশি ব্যস্ত থাকতে হয় জিনেদিন জিদানের দলকে। সেটাও ভালোভাবে পারেনি তারা। খেলার নবম মিনিটে এগিয়ে যায় সিটি। গোলটি তাদের একরকম উপহারই দেয় রিয়াল। থিবো কোর্তোয়া লম্বা শট না নিয়ে বাইলাইনের কাছে রাফায়েল ভারানেকে খুঁজে নেন। ফরাসি ডিফেন্ডারও শট নেননি। তার কালক্ষেপনের সুযোগে দ্রুত ছুটে গিয়ে বল কেড়ে নেন গাব্রিয়েল জেসুস। ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকারের কাছ থেকে বল পেয়ে বাকি কাজটা  অনায়াসেই সারেন ছন্দে থাকা স্টার্লিং। ম্যাচের ২৮তম মিনিটে সমতা ফেরান বেনজেমা। রদ্রিগোর চমৎকার ক্রসে সবার উঁচুতে লাফিয়ে দারুণ হেডে জাল খুঁজে নেন এই ফরাসি স্ট্রাইকার।

রিয়াল মাদ্রিদের অধিনায়ক সার্জিও রামোসের অনুপস্থিতিতে বাড়তি দায়িত্ব ছিল রাফায়েল ভারানের কাঁধে। ইতিহাদ স্টেডিয়ামে এই ডিফেন্ডারের রাতটা কেটেছে দুঃস্বপ্নের মতো। তার ভুলে ৬৮তম মিনিটে আবার এগিয়ে যায় সিটি।
মাঝ মাঠ থেকে উড়ে আসা বল প্রথমে হেড করতে পারেননি, বল ক্লিয়ার করার অনেক সুযোগ ছিল। দ্বিতীয়বারে দুর্বল হেড দিয়ে বল দিতে চেয়েছিলেন কিপারকে। ছুটে গিয়ে মাঝপথে বল ধরে জালে পাঠান জেুসস।
নিয়মিত অধিনায়ক রক্ষণের মূল ভরসা রামোসের অনুপস্থিতিতে রিয়াল যেন ছিল দিশাহীন। ৭৫তম মিনিটে রক্ষণের ভুলে আবার সুযোগ পেয়ে যাচ্ছিলেন জেসুস। তার আগেই বলের কাছে পৌঁছে যান কোর্তোয়া। 

শেষ দিকে মরিয়া চেষ্টা চালায় রিয়াল, কিন্তু জালের দেখা আর পায়নি স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়নরা। প্রথমবারের মতো কোচ হিসেবে ইউরোপ সেরার মঞ্চের নক আউট পর্ব থেকে বিদায় নিলেন জিদান। 

 আগামী শনিবার লিসবনে সেমি-ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে মুখোমুখি হবে সিটি ও লিওঁ।


আমি/সকডক

শেয়ার করুনঃ
আপনার মতামত লিখুন: